ভাড়ায় মিলছে ‘বয়ফ্রেন্ড’!

10

ভাড়ায় মিলছে বয়ফ্রেন্ড। কিছুদিন হলো এই রীতি চালু হয়েছে চীনে। রেন্ট আ বয়ফ্রেন্ড নামে শুরু হয়েছে এই পরিষেবা। শপিং মলে চালু হয়েছে এই ব্যবস্থা। ঘণ্টা মেপে নেওয়া হচ্ছে ভাড়া।

চীনের হিবাই প্রদেশে এমন ব্যবস্থা শুরু হওয়ায় খুশি অনেক নারীই। চীনের অনেক নারীই বিয়ের করার দিকে ঝুঁকছেন না। তাদের কথা ভেবে এই পরিষেবা শুরু হয়েছে। শপিং মলগুলোতে পুরষেরা দাঁড়িয়ে থাকছেন একের পর এক। পছন্দ মত তাদের বেছে নেওয়া যাচ্ছে অর্থের বিনিময়।

মূলত আধ ঘণ্টা বা ১ ঘণ্টার জন্যই এই ভাড়া পাওয়া যাচ্ছে। সরাসরি টাকা দিয়েই বন্ধু বেছে নেওয়া যাচ্ছে বা কিউআর কোড স্ক্যান করে দেওয়া যাচ্ছে টাকা। এই কাজ পাওয়ার জন্য পুরুষদের ব্যক্তিত্ব বিচার করা হচ্ছে। সুগঠন তো বটেই সঙ্গে অবিবাহিতরাই পাচ্ছেন এই সুযোগ।
শুধুমাত্র মল চত্বরেই এই বয়ফ্রেন্ডদের নিয়ে ঘুরতে পারবেন নারীরাই। নারীদের কেনাকাটা করতে বা মলে তাদের ব্যাগ বয়ে দেওয়ার কাজ করছেন এই সব সু-পুরুষেরা। এছাড়াও সঙ্গীকে কোন ড্রেস বা ব্যাগ মানাবে, সেটা নির্ধারণ করতে সাহায্য করবে পুরুষ বন্ধুটি।

ঘুরতে ঘুরতে তার ছবিও তুলে দেবেন। অর্থাৎ সঙ্গ দেওয়া ও মলে যেই নারীরা আসছেন তাদের সময়টা যাতে ভালো কাটে, সেটা নিশ্চিত করতেই এই ব্যবস্থা। তবে সঙ্গীকে কোন রকম স্পর্শ একেবারেই করা যাবে না।

সাইকেল থেকে ছাতা, চীনে সবই ভাড়া পাওয়া যায়। এবার সেই তালিকায় পুরুষ বন্ধুও। কার্ড সোয়াইপ করেই পাওয়া যাচ্ছে এই সুবিধা। হাইকোউ ও হাইনানের বিভিন্ন মলেও শুরু হয়েছে এই ব্যবস্থা। কিন্তু এতে কোন রকম ভুল ধারণা যাতে তৈরি না হয়, সেটা বারবার বলছেন মল কর্তৃপক্ষ।