‘মেসিকে পেরেছি, কেইনকেও আটকে দেবো’

0
39
হ্যারি কেইন (বামে) ও লিওনেল মেসি (ডানে)। ছবি: সংগৃহীত
হ্যারি কেইন (বামে) ও লিওনেল মেসি (ডানে)। ছবি: সংগৃহীত

তার পারফরম্যান্সের ওপর ভর করেই সেমিফাইনালের পথে অগ্রসর হয়েছে ইংলিশরা। তবে কেইনকে আটকে দেওয়ার বিষয়ে দৃঢ় প্রত্যয় ব্যক্ত করেছেন দালিচ।
রাশিয়া বিশ্বকাপের সেমিফাইনালের লড়াইয়ে ইংল্যান্ড মুখোমুখি হতে যাচ্ছে বিশ্বকাপের ডার্ক হর্স ক্রোয়েশিয়ার বিপক্ষে। এই ম্যাচকে সামনে রেখে শুরু হয়েছে কথার লড়াই। এই লড়াইয়ের শুরুটা করেছেন ক্রোয়েশিয়ার কোচ জ্লাতকো দালিচ। আর্জেন্টিনার লিওনেল মেসির পর এবার ইংল্যান্ডের অধিনায়ক হ্যারি কেইনকে রুখে দিবেন বলে হুঁশিয়ারি দিয়েছেন এই কোচ।

রাশিয়া বিশ্বকাপে এখন পর্যন্ত ছয় গোল করেছে কেইন। গোল্ডেন বুটের দৌড়ে সবার আগেই রয়েছেন এই থ্রি লায়নস তারকা। তার পারফরম্যান্সের ওপর ভর করেই সেমিফাইনালের পথে অগ্রসর হয়েছে ইংলিশরা। তবে কেইনকে আটকে দেওয়ার বিষয়ে দৃঢ় প্রত্যয় ব্যক্ত করেছেন দালিচ। তিনি বলেন, ‘কেইন বিশ্বকাপের সর্বোচ্চ গোলদাতা। তাকে আটকানো সহজে হবে না। তবে আমাদের সেরা সেন্টার ব্যাক আছে। মেসিকে পেরেছি, কেইনকেও আটকে দেবো।’

ইংল্যান্ড দলের শক্তির জায়গা নিয়েও কথা বলেছেন এই ক্রোয়েশিয়ান কোচ। ইংল্যান্ড দলে কেইন ছাড়াও রহিম স্টার্লিংকে নিয়ে আলাদাভাবে ভাবছেন তিনি। বলেন, ‘তাদের আগের খেলা দেখে আমি যা বুঝেছি, তারা খুব গতিময় ফুটবল খেলে। তারা খুব ভালো ফ্রি কিক নিতে পারে এবং দলের লম্বা খেলোয়াড়েরা কর্ণার কিকের সময় আলাদা সুবিধা পায়। আমি মনে করি, রহিম স্টার্লিং তাদের একজন গুরুত্বপূর্ণ খেলোয়াড়। সে খুব ক্ষিপ্র গতির খেলোয়াড় এবং কেইনের সঙ্গে তার জুটি খুবই ভয়ংকর হতে পারে।’

ইংল্যান্ড দলের শক্তিমত্তা নিয়ে কথা বললেও দালিচ ভরসা করছেন তার দলের ওপর। নিজ দলের সামর্থ্যের ওপর পূর্ণ আস্থা রয়েছে তার। এ বিষয়ে তিনি বলেন, ‘দলের সামর্থ্যের ওপর ভরসা রয়েছে আমার। ইংল্যান্ডকে ভয় করি না আমরা।’

ইংল্যান্ডের সঙ্গে ম্যাচটি ক্রোয়েশিয়ার জন্য কঠিন হতে যাচ্ছে বলেও স্বীকার করেন দালিচ। ক্রোয়েশিয়ার এই কোচ বলেন, ‘তারা (ইংল্যান্ড) সুইডেনের সঙ্গে খুবই সহজভাবে জিতে গিয়েছিল। তাই তারা আমাদের জন্য শক্ত প্রতিপক্ষ হতে যাচ্ছে। তাদের আমরা সম্মান করি। কিন্তু আমি আমার দলের ওপর আস্থা রাখছি। আমরা ইংল্যান্ড বা অন্য কোনো দলকে ভয় পাই না।’

সূত্র: বিবিসি

LEAVE A REPLY