শেখ হাসিনাকে ‘চতুর্থবারের প্রধানমন্ত্রী’ বানাতে একযোগে কাজের সংকল্প যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী পরিবারে

0
123

শেখ হাসিনার ৩৬তম স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস উপলক্ষে ১৭ মে বুধবার অপরাহ্নে যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগের র‌্যালিতে ২০১৯ সালের নির্বাচনে পুনরায় বাংলাদেশ আওয়ামী লীগকে জয়ী করে শেখ হাসিনাকে ‘চতুর্থ বারের প্রধানমন্ত্রী’ বানানোর প্রত্যাশায় ঐক্যবদ্ধভাবে কাজের সংকল্প ব্যক্ত করা হয়। একইসাথে সুদূর এই প্রবাসেও মুক্তিযুদ্ধের চেতনা বিরোধী তথা শেখ হাসিনার বিরুদ্ধে যে কোন ষড়যন্ত্র সংঘবদ্ধভাবে মোকাবেলার প্রত্যয় ব্যক্ত করা হয়।

নিউইয়র্ক সিটির জ্যাকসন হাইটসে ডাইভার্সিটি প্লাজায় অনুষ্ঠিত এ র‌্যালিতে যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগের সভাপতি ড. সিদ্দিকুর রহমান বলেন, ‘জাতিরজনকের যোগ্য উত্তরসূরি হিসেবে জননেত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বাংলাদেশ পুনরায় মুক্তিযুদ্ধের চেতনায় ফিরেছে। এজন্যেই বাংলাদেশের মানুষের জীবন-মানের উন্নয়ন ঘটার পাশাপাশি আন্তর্জাতিকভাবেও বাংলাদেশ মাথা উঁচু করে দাড়িয়েছে। বাংলাদেশ এগিয়ে চলার এই ধারা অব্যাহত রাখতেই ২০১৯ সালের নির্বাচনে দলীয় প্রার্থীদের বিজয় অর্জনে প্রত্যেক প্রবাসীকে অতন্দ্র প্রহরীর ভ’মিকায় অবতীর্ণ হতে হবে। স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবসে এটিই হউক সকলের সংকল্প।’

এনআরবি গ্লোবাল ব্যাংকের চেয়ারম্যান এবং যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগের জ্যেষ্ঠ যুগ্ম সম্পাদক নিজাম চৌধুরী বলেন, ‘দেশের মানুষের কল্যাণের প্রশ্নে বঙ্গবন্ধু যেমন কারো সাথেই আপস করেননি। ঠিক একই দৃঢ়চেতা নিয়ে বাংলাদেশকে উন্নয়নের মহাসড়কে উঠিয়েছেন বঙ্গবন্ধুর কন্যা শেখ হাসিনা। আমরা তার দীর্ঘায়ু কামনা করছি এবং দেশ-বিদেশে বাংলাদেশের উন্নয়ন-বিরোধী যে কোন ষড়যন্ত্র ঐক্যভাবে রুখে দেয়ার প্রত্যয় ব্যক্ত করছি।’

নিজাম চৌধুরী প্রবাসে মুক্তিযুদ্ধের চেতনায় উজ্জীবিত সকলের উদ্দেশ্যে বলেন, ‘বিশেষ করে, সামনের জাতীয় নির্বাচনে প্রত্যেক প্রবাসীকে নিজ নিজ এলাকায় গিয়ে অথবা অর্থ প্রেরণ করে দলীয় প্রার্থীর বিজয় ত্বরান্বিত করার জন্যে এখন থেকেই প্রস্তুতি নিতে হবে।’ নিউইয়র্ক মহানগর আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি জাকারিয়া চৌধুরী বলেন, ‘জননেত্রী শেখ হাসিনার হাতকে শক্তিশালী করতে যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী পরিবারে ঐক্যের বিকল্প ছিল না। আজ সকলেই আমরা ড. সিদ্দিকুর রহমানের নেতৃত্বে ঐক্যবদ্ধ রয়েছি জামাত-শিবিরের যে কোন অপতৎপরতা রুখে দিতে।’

যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক আব্দুস সামাদ আজাদের পরিচালনায় এতে আরো বক্তব্য রাখেন সংগঠনের সহ-সভাপতি মাহবুবুর রহমান ও শামসুদ্দিন আজাদ, যুগ্ম সম্পাদিকা আইরিন পারভিন, সাংগঠনিক সম্পাদক মহিউদ্দিন দেওয়ান ও আব্দুল হাসিব মামুন, কোষাধ্যক্ষ আবুল মনসুর খান, মুক্তিযোদ্ধা বিষয়ক সম্পাদক মোজাহিদুল ইসলাম, কৃষি সম্পাদক আশরাফুজ্জামান, প্রবাসী কল্যাণ সম্পাদক সোলায়মান আলী, ত্রাণ ও সমাজকল্যাণ সম্পাদক জাহাঙ্গির হোসেন, উপ-প্রচার সম্পাদক তৈয়বুর রহমান টনি, উপ-দপ্তর সম্পাদক এম এ মালেক, নির্বাহী সদস্য শাহানারা রহমান, ডেনি চৌধুরী, খোরশেদ খন্দকার, উপদেষ্টা মন্ডলীর সদস্য ডা. মাসুদুল হাসান, মহিলা আওয়ামী লীগের নেত্রী মমতাজ শাহানা ও নুরুন্নাহার গিনী, নিউইয়র্ক মহানগর আওয়ামী লীগের তথ্য ও গবেষণা সম্পাদক মোরশেদা জামান, যুক্তরাষ্ট্র যুবলীগের আহবায়ক তারেকুল হায়দার চৌধুরী, স্বেচ্ছাসেবক লীগের সহ-সভাপতি দরুদ মিয়া রনেল প্রমুখ।

LEAVE A REPLY