প্রধানমন্ত্রী যদি আগামী নির্বাচনে নিরপেক্ষ একটি নির্বাচন কমিশন (ইসি) গঠন করতে না পারেন, তাহলে দেশ ধ্বংসের দিকে চলে যাবে বলে মন্তব্য করেছেন বিএনপির সহসভাপতি আবদুল্লাহ আল নোমান।

তিনি বলেন, ‘নির্বাচন কমিশন নতুন করে করার জন্য প্রেসিডেন্টকে বলেছি, ১৩ দফা দাবি দিয়েছি। এ ১৩ দফা যার কাছে দিলাম, তিনি একদিকে প্রেসিডেন্ট অন্যদিকে আওয়ামী লীগের অনেক বড় নেতা। কাজেই প্রেসিডেন্টের কাছ থেকে আমরা প্রত্যাশা করি ক্ষমতার কারণে, কিন্তু সে প্রত্যাশা পূরণ হবে কি না আমি জানি না। যদি পূরণ না হয়, প্রধানমন্ত্রী যদি আগামী নির্বাচনে নিরপেক্ষ একটি কমিশন গঠন করতে না পারেন তাহলে দেশ ধ্বংসের দিকে চলে যাবে। তাহলে দেশের মানুষের গণতন্ত্র প্রতিষ্ঠার যে ইচ্ছা তা বাস্তবায়িত হবে না।’

আজ শনিবার বিএনপির চট্টগ্রাম মহানগর চকবাজার ওয়ার্ডের সম্মেলনে আবদুল্লাহ আল নোমান এসব কথা বলেন। চকবাজারের একটি কমিউনিটি সেন্টারে এ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়।
বিএনপির এই নেতা আরো বলেন, ‘অবিলম্বে জনগণের আস্থাভাজন নির্বাচন কমিশন করতে হবে। আওয়ামী লীগের প্রাক্তন ব্যুরোক্রেসি, পুলিশে ছিল, সেক্রেটারিয়েটে ছিল, অন্যান্য এলাকায় ছিল। তাদেরকে নিয়ে সার্চ কমিটি করে, তারা আবার নির্বাচন কমিশন করবে এটা পক্ষপাতিত্ব হবে। আমাদের নেত্রী বলেছেন, কমিশন নির্বাচনকালীন একটি সহায়ক শক্তি। সেটা আলোচনার মধ্য দিয়ে নির্ধারিত হতে পারে।’

সম্মেলন প্রস্তুতি কমিটির আহ্বায়ক সবুক্তগীন সিদ্দিকী মক্কির সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সম্মেলনে প্রধান বক্তা ছিলেন নগর বিএনপির সভাপতি ডা. শাহাদাত হোসেন।

সম্মেলনে নগর বিএনপির সাধারণ সম্পাদক আবুল হাসেম বক্কর, যুবদল সভাপতি কাজী বেলাল, ইয়াছিন চৌধুরী লিটন ও মহিলা নেত্রী লুসি খান, ছাত্রদলের সাবেক সাধারণ সম্পাদক মো. আলী, আহমেদুল ইসলাম রাসেল, আর ইউ চৌধুরী শাহিন, আনোয়ার হোসেন, এসকান্দর মির্জা, মহিলা নেত্রী জেসমিন খান, ছাত্রদল নেতা গাজী সিরাজ উল্লাহ বক্তব্য রাখেন।

সম্মেলন শেষে বিএনপি নেতা মনজুর আলমকে সভাপতি ও আবদুল হালিম বাবলুকে সাধারণ সম্পাদক করে বিএনপির চকবাজার ওয়ার্ড কমিটি নির্বাচিত করা হয়।

LEAVE A REPLY